নিউজ

প’র’কী’য়া সবচেয়ে বেশি উপভোগ করেন যারা, জানলে অবাক হবেন আপনিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :-জীবনের সুখ শান্তি ভালোবাসা এসবের পিছনে মানুষ ক্রমাগত ছুটে চলেছে । কখনো মিলছে সফলতা তো কখনো মেলে ব্যর্থতা। প্রেম বা ভালোবাসা তে জড়িয়ে থাকে আবেগ, অনুভূতি । সেই সম্পর্ককে একটা পরিণতি দেওয়া নাম হলো বিয়ে । কিন্তু অনেকেই বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে চায় না । কারণ বিয়ে করা মানে নিজের সাথে সাথে আরও একটা জীবনের দায়িত্ব কাঁধে তুলে নেওয়া । সেটা ছেলের হোক বা মেয়েরই হোক।

নতুন প্রজন্মের কাছে ছেলে ও মেয়েরা সমানভাবে প্রাধান্য পাই । এমনটা নয় যে ছেলেরাই মেয়েদের দায়িত্ব নেবে ,কখনো কখনো মেয়েরাও দায়িত্ব নেই ছেলেদের । কিন্তু দায়িত্বের দিক দিয়ে কোথাও যেন ছেলেদের পাল্লা ভারী । কিন্তু শারীরিক চাহিদা ? সেটাতে খামতি থেকে গেলে চলে আসে ভাঙন ।

এর পাশাপাশি বিয়ের পর যারা সুখ পাই না তারা অনায়াসে জড়িয়ে পড়ে পরকীয়া তে । স্বামী বা স্ত্রী কে লুকিয়ে পরকীয়ার করার আনন্দ আলাদাই । এখানে থাকে শুধু যৌ-ন চাহিদা । মূলত জাত যৌ-ন চাহিদা পূরণ হয় না তারা জড়িয়ে যায় এই পর- কী-য়া চক্রে । আপনি জনালে অবাক হবেন পরকীয়াতে মেয়েরা সপ্তাহে অন্তত দুবার সে-ক্স করে তার সহবাসীর সাথে ।

। একটি সমীক্ষায় সম্প্রতি এমন তথ্যই প্রকাশ পেয়েছে। কয়েকজনকে নিয়ে একজন গবেষক একটি গবেষণা করেছিলেন।তার টার্গেট ছিল পরকীয়া করে এমন মানুষ। নারীই হোক বা পুরুষ। আর সেই গবেষনায় কিছু অবাক করা বিষয় উঠে আসে। প্রায় এক হাজার মানুষের উপর গবেষণা থেকে যে তথ্য উঠে এসেছে তা ‘জার্নাল অফ সেক্সুয়ালিটি’-তে প্রকাশ পেয়েছে।

তবে অনেকের ধারণা যে এতে ছেলেরা জড়িয়ে থাকে । কিন্তু বাস্তবে উল্টো । পরকীয়া র সাথে জড়িয়ে মেয়ের সংখ্যা বেশি । একটা সমীক্ষা বলছে পরকীয়া তে বেশি মাত্রায় অংশ নেয় মেয়েরা । লক্ষ একটাই যৌ-ন চাহিদা মেটানো । কারণ মেয়েদের আবেগ বেশি । তাই সম্পর্ক ভাঙতে চাই না তারা । কিন্তু যৌ-ন চাহিদা না মিটলে মেলেনা মানসিক শান্তি । তাই মেয়েরা বেশি মাত্রায় যোগ দেয় এই পর-কী-য়ার ।যদিও এর ব্যতিক্রম রয়েছে অব্যশই ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button