নিউজ

যেভাবে বাবা লোকনাথের আরাধনা করলে সংসারে আসে সুখ, জীবনে আসে সুসময়-অর্থ!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-ঈশ্বর এমন এক ধরনের কাল্পনিক ভাবনা যা আমাদেরকে আমাদের প্রতিদিনের জীবনে অনুপ্রাণিত করে চলে। এবং তার সাথে সাথে জীবনকে রক্ষা করে চলেন । ভারতবর্ষে ঈশ্বর বিশ্বাসী মানুষের সংখ্যা অধিক । বলাবাহুল্য ঈশ্বরে বিশ্বাস করেন না এমন মানুষের সংখ্যা খুবই কম।

কিন্তু এই ঈশ্বর এর কথা বলতে গেলে যার কথা না বললেই হয় না তিনি হলেন লোকনাথ বাবা । আর বাকি পাঁচটা ঈশ্বরের মতো তিনি হয়তো অদৃশ্য কোন কাল্পনিক চেহারা ন। য় কারণ লোকনাথ বাবা রক্তমাংসের তৈরি মানুষরূপী এল দেবতা।

লোকনাথ এর জন্মদিন জন্মাষ্টমীতে ১৭৩০ খ্রিষ্টাব্দের ৩১ আগস্ট ।  কলকাতা থেকে কিছু দূরে ২৪ পরগণার কচুয়া গ্রামে একটি ব্রাহ্মণ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম রামনারায়ণ ঘোষাল এবং মাতা কমলাদেবী। তিনি ছিলেন তার বাবা-মায়ের ৪র্থ পুত্র। লোকনাথে জন্মস্থান নিয়ে শিষ্যদেরও ভেতরে বিতর্ক আছে।

নিত্যগোপাল সাহা এ বিষয়ে হাইকোর্টে মামলা করেন ও রায় অনুযায়ী তার জন্মস্থান কচুয়া বলে চিহ্নিত হয়। যদিও অনেকে মনে করেন তার জন্মস্থান বর্তমান উত্তর চব্বিশ পরগণা জেলার চাকলা। যা চাকলাধাম নামে লোকনাথ ভক্তদের নিকট পরিচিত।

এই লোকনাথ বাবার এমন বেশ কিছু বানী আছে যা আমাদের জীবনে চলার পথে ওতপ্রোতভাবে কাজে লাগে । মানুষরূপী এই ঈশ্বর সর্বদা চেষ্টা করেছেন তার ভক্তদের পাশে থাকার। যেকোন বিপদে সমাধান খুঁজে বের করার । লোকানাথ এর পরিচিত একটি বাণী হল “রনে বনে জঙ্গলে যখনই বিপদে পড়িবে আমাকে স্মরণ করিয় আমি তোমাদের সাহায্য করিব” এটি যে শুধু একটি বাণী তেমনটা কিন্তু নয় কারণ এমন অনেকেই আছেন যারা এই বাণীর দ্বারা উপকৃত হয়েছে ।

বাবা লোকনাথের কৃপায় প্রতিটি দিনই নতুন করে সৃষ্টি হয়ে থাকে  । বাবা প্রতিটি মুহূর্তেই ভক্তদের পরামর্শ দিতেন সৎপথে চলার ৷ সৎ ভাবে জীবন যাপন করার ৷জীবনের প্রতিটি মুহূর্তেই বাবা লোকনাথ পাসে থাকেন তিনিই স্বপ্নপূরণ করেন ৷

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button