নিউজ

এই মুহূর্তের সবচেয়ে বড় খবর, এই জনপ্রিয় ব্যাংকের বেশ কয়েকটি শাখা হতে চলেছে বন্ধ, ভোগান্তির আশঙ্কা গ্রাহকদের!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-অনেকদিন ধরেই জল্পনা চলছে এবার সেই দুঃসংবাদই আসতে চলেছে।একসাথে ভারতের জনপ্রিয় ব্যাংকের ৫০টি শাখা বন্ধ হতে যাচ্ছে খরচ নিয়ন্ত্রণে আনার জন্য। সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে এমনই তথ্য দেওয়া হয়েছে ব্যাংকের নতুন ম্যানেজিং ডিরেক্টর প্রশান্ত কুমারের তরফে।তিনি জানান, এমনকি ২০২১ সালেও নতুন করে কোনও শাখা খোলার পরিকল্পনা নেই কর্তৃপক্ষের।

মার্চ মাসে প্রশান্ত কুমার ভারতের ব্যাংকের পরিচালনার দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। সেপ্টেম্বরের মধ্যে ২১ শতাংশ অপারেটিং এক্সপেন্স কমিয়ে আনে এই ব্যাংক। জানা গিয়েছে বাকি ১১০০ ব্রাঞ্চের ভাড়ার ব্যাপারে কিছু সিদ্ধান্ত নেবে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

প্রশান্ত কুমার আরও জানিয়েছেন এক একটি জায়গায় দুটি ব্রাঞ্চ এত কাছাকাছি এলাকায় রয়েছে, যেগুলি চালানোর কোনও অর্থ হয় না। এরমধ্যেই তাই সেন্ট্রাল মুম্বইয়ের ইন্ডিয়া বুলস ফিনান্স সেন্টারের সদর দফতরের দুটি ফ্লোর ছেড়ে দিয়েছে ইয়েস ব্যাংক।২০২২ সালে ফের অর্থনৈতিক বৃদ্ধির দিকে জোর দেওয়া হবে বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

সম্প্রতি, মার্চ মাসের শুরুর দিকে, এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট ইয়েস ব্যাংকের প্রতিষ্ঠাতা রানা কাপুরের বিরুদ্ধে টাকা পাচারের মামলা করা হয়।ইডি সূত্রে জানা যায়, রানা কাপুরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় ডিএইচএফএল সংস্থাকে এই ব্যাংকের ঋণ দেওয়ার ব্যাপারে এবং তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। ডিএইচএফএল-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয় ৭৯টি ভুয়ো সংস্থা এবং এক লক্ষ গ্রাহকের মাধ্যমে ১৩,০০০ কোটি টাকা পাচার করার।

অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন কথায়, ইয়েস ব্যাংকের ব্যর্থতার পিছনে রয়েছে ডিএইচএফএল মতো কর্পোরেট সংস্থাকে দেওয়া অর্থের ঘাটতি। ইয়েস ব্যাংকের এই ব্যর্থতার ফল হিসেবে কতটা অর্থনৈতিক ভোগান্তি আসতে চলেছে সেটাই মূল বিষয়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button