নিউজ

আসছে আধার কার্ডের নয়া রূপ, কী কী এক্সট্রা ফিচার্স পাবেন এতে? যেভাবে করবেন বাড়ি বসে আবেদন!

Advertisement

নিজস্ব প্রতিবেদন :-আমাদের দৈনন্দিন জীবনে বাকি সমস্ত কিছুর মধ্যেও অন্যতম প্রধান গুরুত্বপূর্ণ একটি জিনিস হল আধার কার্ড। ভোটার কার্ড বা অন্যান্য সরকারি নথি মতন এই আধার কার্ড আমাদের দৈনন্দিন জীবনে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। আধার কার্ড না থাকলে বর্তমান যুগের বহু কাজ আটকে যায়। বলা বাহুল্য সরকারি এবং বেসরকারি প্রতিটি কাজেই আধার এর প্রয়োজনীয়তা থাকে। কিন্তু আপনার কাছে যদি আধার কার্ড না থেকে থাকে তাহলে সে কাজ আটকে যায়।

Advertisement

অপরদিকে আধার কার্ড আয়তনে অনেক বড় হয় ।তার উপর থাকে না ল্যামিনেশন । তাই একে সঙ্গে করে বহন করার মতন সুবিধা ঠিকঠাক পাওয়া যায় না । অনেকে আবার এ আধার কার্ড থেকে বাইরে থেকে ছোট করে কেটে ল্যামিনেশন করিয়ে নেয় । এজন্য অবশ্য নিজের পকেট থেকে খরচা করতে হয় কিছু টাকা । কিন্তু ইউনাইটেড আইডেন্টিফিকেশন অফ ইন্ডিয়া(UIDAI) তরফ থেকে একটি নতুন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যেখানে আপনাকে আর অতিরিক্ত পরিশ্রম করতে হবে না ।

Advertisement

ইউনাইটেড আইডেন্টিফিকেশন অফ ইন্ডিয়া জানিয়েছে যে এবার তাদের ওয়েবসাইটে নির্দিষ্ট পদ্ধতিতে আবেদন করলেই বাড়িতে পৌঁছে যাবে ছোট সাইজের ল্যামিনেশন করা উচ্চমানের আধার কার্ড । এর জন্য, আধার কার্ড গ্রাহকদের অনলাইনে আবেদন করতে হবে। যেতে হবে UIDAI-এর অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে- https://residentpvc.uidai.gov.in/order-pvcreprint। সম্প্রতি এই বিষয়টি টুইট করেও জানানো হয়েছে, ইউনিক আইডেন্টিফিকেশন অথোরিটি অফ ইন্ডিয়া বা UIDAI-এর তরফে।

Advertisement

প্রথমে আপনাকে তাদের ওয়েবসাইটে গিয়ে তার আধার নাম্বার দিতে হবে ।তারপর নাম-ঠিকানাসহ বাকি তথ্য সেখানে প্রদান করতে হবে। তারপর আপনাকে সিকিউরিটি কোড দিতে হবে যা UIDAI তরফ থেকে দেওয়া থাকবে । এরপর যে মোবাইল নাম্বারটি আধার কার্ডের সাথে লিংক করা আছে সেই নাম্বারটি ইনপুট করে” send OTP ” ক্লিক করতে হবে । যদি তা না থাকে, তাহলে ‘মাই মোবাইল নম্বর ইজ নোট রেজিস্টার’ অপশনে যেতে হবে।

Advertisement

অর্থাৎ আবেদনকারীকে মোবাইল নম্বরের সঙ্গে আধার নম্বর সংযুক্ত করতে হবে। এবার মোবাইল নম্বর দেওয়ার জায়গায় মোবাইল নম্বর দিতে হবে। এইসব কাজ সম্পূর্ণ হলে, সেন্ড ওটিপি অপশনে গিয়ে ক্লিক করলেই, আবেদনকারীর মোবাইল নম্বরে আসবে একটি ওটিপি। যা একটি নির্দিষ্ট স্থানে দিয়ে, একবার যাচাই করে নিতে হবে। এরপর আবেদনকারীকে দেখানো হবে তাঁর আধারের বিস্তারিত তথ্য।

Advertisement

আর তার নিচেই থাকবে টাকা পাঠাবার অপশন। সেখানে ক্লিক করলে নেট ব্যাঙ্কিং, ইউপিআই, ক্রেডিট কার্ড বা ডেবিট কার্ডের মাধ্যমে টাকা পাঠাতে পারবেন আবেদনকারী। এর জন্য খরচ হবে মাত্র ৫০ টাকা। উপরিক্ত পদ্ধতিগুলি ঠিকঠাকভাবে করে নিলে কয়েকদিনের মধ্যেই আপনার বাড়িতে চলে আসবে উচ্চমানের ল্যামিনেশন করা ছোট্ট আকারের আধার কার্ড ।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button