নিউজ

“মেয়েদের শরীরের এই ৫টি অঙ্গ বড় হলে তারা জীবনে খুব সুখী ও সৌভাগ্যবতী হবেই হবে”- বলছিলেন চাণক্য!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-মানব শরীরের প্রতিটি অঙ্গই নিজের নিজের জায়গায় কার্যকরী।কিন্তু নারীরা নতুন প্রজন্মকে পৃথিবীতে আনতে পারে,তাদের সহ্য শক্তির মাধ্যমে।নারী ছাড়া যে কোনো সংসার অচল।পুরুষের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে চলে বিংশ শতাব্দীর নারী। মেয়েদের শরীর আকর্ষনীয় করে তোলার জন্য তাদের যেমন সুন্দরী হওয়ার প্রয়োজন হয় তেমন শরীরের বিভিন্ন অঙ্গের সুনিপন গঠন তাদের সৌন্দর্য।

কিন্তু জানেন কি? মেয়েদের শরীরের কিছু অঙ্গের আকারের উপর থাকে তাদের ভাগ্য।নারীদের কোন পাঁচটি অঙ্গ বড় হলে তারা হয় খুবই ভাগ্যবান ও লক্ষীমন্ত!!

প্রচীলকাল থেকেই নারীকে সৌভাগ্যের প্রতীক হিসাবে ধরা হয়। রূপবতী ও গুনবতী নারী সকলেরই কাম্য।

১.কান – কান হচ্ছে নারি শরীরের এমন এক অঙ্গ যা তার ভাগ্যকে প্রভাবিত করে । কোনো মেয়ের কান বড় হয় তবে সে খুব ভাগ্যবতী এবং অনেক আয়ুর অধিকারিণী হয়ে থাকে। সে অনেক দিন বেঁচে থাকে। আর এদের বাস্তব জীবনে অনেক আশির্বাদ প্রাপ্তি ঘটে।

২.চুল – এরপর আসা যাক চুলের কথায়। যদি কোনো মেয়ের চুল বড় হয় ও ঘন হয় তবে সে একদিকে যেমন খুব রূপবতী হয় তেমনি আবার গুনবতীও হয়। এদেরকে লক্ষীমন্ত মেয়ে বলা হয়।

৩.পা – যদি কোন মেয়ের পা বেশ লম্বা হয়, তাহলে সেই সব মেয়েরা যে কোন কাজেই সফলতা পায়। এটি অত্যন্ত শুভ লক্ষন। এরা অর্থের দিক থেকে অনেকটা উন্নত হন।

৪.হাত – চতুর্থ অঙ্গ হাত। যাদের হাত বড় ও কোমল হয় সেই নারীরা খুব বুদ্ধিমতী হয়। যে কোন কাজে তারা পারদর্শীও হয়। এই সব মহিলারা বাকী মেয়েদের থেকে নিজের খুব বেশি ভাগ্যবতী ও স্বামী সোহাগী হয়।

৫. নাভী -সর্বশেষে আসা যাক নাভীর কথায়। সবার নাভির গঠন বিভিন্ন। কারো ছোটো, কারো বড়ো, কারো বা মাঝারি।যেসব মেয়েদের নাভি খুব বড় হয় সেইসব মেয়েরা খুব ভাগ্যবতী। বড় নাভি সৌভাগ্যের প্রতীক। ধনী ও শুভ লক্ষনের প্রতীকও বলা হয় একে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button